কিভাবে WHMCS এর জেনারেল সেটিংস কনফিগারেশন করবেন

WHMCS নিয়ে আগের পর্বগুলোতে আমরা ক্লায়েন্ট সেকশন, অর্ডার সেকশন নিয়ে আলোচনা করেছি। আজকে আমরা WHMCS এর একটি গুরত্বপূর্ণ বিষয় নিয়ে আলোচনা করবো। যা পুরো WHMCS কে নিয়ন্ত্রন এবং সঠিক ভাবে পরিচালনা করার জন্য খুবই গুরত্বপূর্ণ। আমরা আজকে জেনারেল সেটিংস্‌ নিয়ে আলোচনা করবো। কিভাবে আপনি জেনারেল সেটিংস্‌ কনফিগারেশন করবেন।

আগের পর্বগুলো মিস করেছেন?!

 ইন্টারফেস ও পরিচিতি (WHMCS পর্ব-১)

কিভাবে নতুন ক্লায়েন্ট অ্যাড করবেন (WHMCS পর্ব-২)

কিভাবে নতুন অর্ডার অ্যাড করবেন (WHMCS পর্ব-৩)

জেনারেল সেটিংস্‌ কনফিগারেশন এর জন্য প্রথমে আপনার WHMCS এ লগিন করুন।

WHMCS Admin Login

 

লগিন করার পর আপনি WHMCS এর ড্যাশবোর্ড দেখতে পাবেন। এখান থেকে Setup সেকশনে গিয়ে General Settings এ ক্লিক করুন।

 

WHMCS Setup Menu

 

General Settings এ ক্লিক করার পর আপনি নিচের চিত্রের মত একটি পেজ পাবেন, এখানে আপনাকে আপনার পাসওয়ার্ড দিয়ে কনফার্ম করতে হবে।

 

Password Authentication WHMCS

 

এখানে পাসওয়ার্ড দিয়ে কনফার্ম করার পর আপনি General Settings এর কনফিগারেশন পেজটি পাবেন।

General Tab

 

General Tab WHMCS

 

এখানে আপনাকে আপনার কোম্পানি সম্পর্কিত কিছু ইনফর্মেশন দিতে হবে, তার মধ্যে উল্লেখযোগ্য হচ্ছে,

Company Name: এখানে আপনাকে আপনার কোম্পানির নাম লিখতে হবে।

Email Address: এখানে আপনার কোম্পানির বিভিন্ন কাজে যে মেইল এড্রেসটি ব্যবহার করেন বা করবেন সেটি লিখুন।

Domain: এখানে আপনার কোম্পানির ওয়েবসাইট এর ডোমেইন অথবা আপনার WHMCS এর সাথে যুক্ত প্রাইমারী ডোমেইন নেমটি লিখুন।

Logo URL: এখানে আপনার ক্লায়েন্ট সেকশন এ কোম্পানির যে লোগোটি ব্যবহার করবেন, লোগোর URL লিখুন।

Pay to Text: এখানে আপনাকে আপনার বিলিং এড্রেস দিতে হবে, যে এড্রেস আপনার কাস্টমার ইনভয়েস এ থাকবে।

WHMCS System URL: এখানে আপনাকে আপনার ওয়েবসাইট এর ক্লায়েন্টস প্যানেল এর ডোমেইন নেমটি লিখতে হবে, (https://clients.yourcompany.com)

Template: WHMCS এ আপনি কোন থিমস বা টেমপ্লেট ইউজ করবেন সেটি এখান থেকে সিলেক্ট কর দিতে হবে।

উপরের ইনফর্মেশন গুলো সঠিক ভাবে দিতে পারলে আপনার এই সেকশনের কাজ শেষ, শুধু সেভ করার জন্য Save Changes বাটনে ক্লিক করুন।

 

Localisation Tab

Localization Tab WHMCS

 

এখানে আপনাকে আপনার সময়, তারিখ এবং ভাষা সম্পর্কিত ইনফর্মেশনগুলো দিতে হবে।

System Charset: এখানে আপনার পুরো সিস্টেম এর কারসেট (Encoder) দিতে হবে। ডিফল্ট Encoder UTF-8.

Date Format: এখানে আপনাকে তারিখ এর জন্য ফরম্যাট সিলেক্ট করে দিতে হবে, অর্থাৎ আপনার সিস্টেমে তারিখ কোণ ফরম্যাট এ দেখাবে (Day-Mon-Year). আর এখানে আপনি যে ফরম্যাট সিলেক্ট করবেন আপনার অ্যাডমিন পানেলে সেই ফরম্যাটে তারিখ দেখাবে।

Client Date Format: আপনার ক্লায়েন্ট প্যানেলে তারিখ কোন ফরম্যাট এ দেখাবে, তা এখান থেকে সিলেক্ট করে দিতে হবে।

Default Country: এখানে আপনার দেশ সিলেক্ট করে দিতে হবে।

Default Language: এখানে আপনার ডিফল্ট ভাষা সিলেক্ট করে দিতে হবে। আপনি আপনার সিস্টেম এর ভাষা যদি English করতে চান, তাহলে English সিলেক্ট করন।

Enable Language Menu: এক অপশনটির মাধ্যমে আপনার ক্লায়েন্ট সেকশনে একটি ল্যাঙ্গুয়েজ মেনু ব্যবহার করতে পারবেন, এতে ক্লায়েন্ট তার ইচ্ছে মত যে কোণ ল্যাঙ্গুয়েজ সিলেক্ট করে ক্লায়েন্ট সেকশন অপারেট করতে পারবে।

Remove Extended UTF-8 Characters: ক্লায়েন্ট যখন কোন সাপোর্ট টিকেট ওপেন করে, তখন সেখানে কোণ আইকন বা ইমোজি থাকলে তা এই অপশন ব্যবহারের মাধ্যমে অটোমেটিক্যালি রিমুভ করে দেয়া যায়।

Phone Numbers: এই অপশনটি চালু থাকলে আপনার ক্লায়েন্ট এর প্রভাইড করা ফোন নাম্বারের সাথে তার কান্ট্রি ফ্ল্যাগ এবং কান্ট্রি কোড অটোমেটিক্যালি অ্যাড হয়ে যায়।

 

Ordering Tab

Ordering Tab WHMCS

 

এখানে আপনার অর্ডার সম্পর্কিত কিছু বিষয় নির্ধারন করে দিতে হবে। তার মধ্যে উল্লেখযোগ্য হচ্ছে,

Default Order Form Template: এখানে আপনাকে অর্ডার টেম্পলেট সিলেক্ট করে দিতে হবে। ক্লায়েন্ট সেকশনে আপনার প্রোডাক্ট বা সার্ভিস এর প্রাইচিং প্ল্যান কেমন দেখাবে তা এখান থেকে সিলেক্ট করে দিতে হবে।

Sidebar Toggle Option: এই অপশনটি এনাবেল করার মাধ্যমে ব্যবহারকারী ক্লায়েন্টসে এ গিয়ে সিলেকশন পেজ থেকে আরো কিছু প্রোডাক্ট বা সার্ভিস অ্যাড করতে পারবে।

Allow Notes on Checkout: এই অপশনটি এনাবেল করার মাধ্যমে ক্লায়েন্ট এর অর্ডার চেকআউট পেজ এ একটি অতিরিক্ত বক্স যুক্ত হবে। ক্লায়েন্ট অর্ডার করার সময় যদি আরো কিছু সার্ভিস ইনক্লুড করতে চায়, যা ক্লায়েন্ট সেকশনে বিদ্যমান নেই এছাড়াও যদি ঐ সার্ভিস সম্পর্কে সরাসরি কোন নোট লিখে অ্যাডমিন এর নিকট পাঠাতে চায় তাহলে তাহলে এই Notes বক্সটিতে লিখে পাঠাতে পারবে।

Block Existing Domains: ধরুন আপনার ক্লায়েন্ট লিস্ট এ একটি ডোমেইন অ্যাক্টিভ, পেনডিং বা সাসপেন্ড অবস্থায় রয়েছে, কেউ যদি আপনার ক্লায়েন্ট প্যানেল থেকে সেই ডোমেইন নেম এর জন্য অর্ডার করে তাহলে অর্ডারটি অটোমেটিক্যালি ব্লক হয়ে যাবে।

Domains Tab

Domains Tab WHMCS

 

ডোমেইন সম্পর্কিত সব ধরনের সেটিংস্‌ এখান থেকে সেটআপ করে দিতে হবে আপনাকে।

Domain Registration Options: এই ফাংশনটি পুরোপুরি এনাবেল থাকলে আপনার ক্লায়েন্ট ডোমেইন রেজিস্ট্রেশান করতে পারবে, এবং প্রয়জনে তাদের ডোমেইন ট্র্যান্সফার করে নিতে পারবে।

Enable Renewal Orders: এই ফাংশনটি চালু থাকলে, ক্লায়েন্ট যে কোন সময় তার প্রোফাইল এ লগিন করে তার মেয়াদ শেষ হওয়া ডোমেইনটি রিনিউ করে নিতে পারবে।

Auto Renew on Payment: এটি চালু থাকলে, কাস্টমারের ইনভয়েস পেইড হলেই অটোমেটিক্যালি তার প্রোডাক্ট রিনিউ হয়ে যাবে।

Auto Renew Requires Product: এই ফাংশনটি এনাবেল করে রাখলে, ক্লায়েন্ট এর ডোমেইন রিনিউ এর সাথে এর সাথে ইনক্লুডেড সার্ভিস বা প্রোডাক্টগুলো (DNS Management, ID Protection) ও অটোমেটিক্যালি রিনিউ হয়ে যাবে।

Default Auto Renewal Setting: এই ফাংশনটি চালু রাখার মাধ্যমে ক্লায়েন্টদের যে কোন প্রোডাক্ট রিনিউ এর ক্ষেত্রে ঐ প্রোডাক্ট এর সব ধরনের সেটিংস্‌ ডিফল্ট অবস্থায় রাখা যায়।

Create To-Do List Entries: এই অপশন এর কাজ হচ্ছে, ডোমেইন রেজিস্ট্রেশান এর সময় যদি কোন ধরনের এরর দেখায় তাহলে এটি সেই এররটিকে এন্ট্রি করে রাখে।

Domain Sync Enabled: এটি সবগুলো ডোমেইন এর স্ট্যাটাস সিঙ্ক্রোনাইজ করে রাখে।

Default Name Server: এখানে ডোমেইন এর জন্য আপনার ডিফল্ট Name Server এন্ট্রি করে দিতে হবে। যেমন, (ns1.example.com, ns2.example.com)

Use Clients Details: এই ফাংশনটি ক্লায়েন্ট এর রেজিস্ট্রেশান ইনফর্মেশন সংরক্ষন করে।

 

Mail Tab

Mail Tab WHMCS

 

এই সেকশনে মূলত আপনার সার্ভার বা সাইট থেকে পাঠানো মেইলের সব ধরনের সেটিংস্‌ থাকে। আপনাকে শুধু প্রয়োজন অনুযায়ী কনফিগারেশন করে নিতে হবে।

Mail Type: আপনার Mail Type সিলেক্ট করুন, যদি PHP হয় তাহলে PHP আর যদি SMTP হয় SMTP সিলেক্ট করুন।

Mail Encoding: এখানে আপনাকে Mail Encoding সিলেক্ট করতে হবে।

SMTP Port: এখানে আপনাকে SMTP Port লিখে দিতে হবে। কিছু SMTP Port Number

  • None: 25 or 26
  • SSL: 465 or 587
  • TLS: 587

SMTP Host: এখানে আপনার যে ডোমেইন থেকে মেইল পাঠাবেন সেই সেই ডোমেইন এর হোস্ট এড্রেসটি (mail.example.com) লিখুন।

SMTP Username: ক্লায়েন্টদের কাছে আপনার যে মেইল থেকে মেইল যাবে ঐ মেইলটি (support@example.com, hello@example.com) লিখুন।

SMTP Password: ক্লায়েন্টদের কাছে আপনার যে মেইল থেকে পাঠাবেন ঐ মেইল এর পাসওয়ার্ড লিখুন।

SMTP SSL Type: এখানে আপনাকে SSL এর Type সিলেক্ট করতে হবে,

  • None
  • SSL
  • TLS

Global Email Signature: এখানে আপনার Email Signature দিতে হবে। যেমন,

{Best Regard

Your Company Name

https://yourcompany.com}

Global Email CSS Style: এখানে আপনার পাঠানো মেইল এর CSS Style দিতে হবে।

Client Email Header Content: এখানে আপনার পাঠানো মেইল এর হেডার দিতে হবে, যেমন আপনার মেইল এর হেডার এ যদি আপনার কোম্পানির লোগো দিতে চান, তাহলে এখানে আপনাকে HTML এবং CSS এর সমন্বয়ে লোগো অ্যাড করে দিতে হবে।

Client Email Footer Content: এখানে আপনার মেইল এর ফুটার ঠিক করে দিতে হবে। যেমন, আপনার মেইল এর নিচের অংশে কি থাকবে। আপনি চাইলে এখানে নিম্নোক্ত ইনফর্মেশন দিয়ে দিতে পারেন।

{Visit Our Website, Login to your Account, Get Support, Copyright © Your Company Name | All Rights Reserved}

System Emails From Name: এখানে আপনাকে নির্দিষ্ট করে দিতে হবে যে আপনার সিস্টেম ইমেইল ফর্ম এর নাম কি হবে। যেমন, আপনি চাইলে আপনার কোম্পানির নাম দিয়ে দিতে পারেন। এতে যে কোন ক্লায়েন্ট এর কাছে মেইল গেলে মেইল আপনার কোম্পানির নামে যাবে।

System Emails From Email: এখানে আপনার ডিফল্ট মেইল এড্রেসটি লিখুন। যে মেইল থেকে ক্লায়েন্ট মেইল পাবে।

 

Support Tab

 

Support Tab WHMCS

 

সাপোর্ট ট্যাবটি খুব গুরত্বপূর্ণ, কারন আপনার ক্লায়েন্ট তার যে কোন সমস্যা সম্পর্কিত তথ্য আপনাকে সাপোর্ট এর মাধ্যমে জানাবে। আর এখানে আপনাকে ক্লায়েন্ট এর জন্য কিছু জিনিস নির্দিষ্ট করে দিতে হবে। যাতে ক্লায়েন্ট ইজিলি সাপোর্ট টিকেট এর মাধ্যমে আপনাকে তার সমস্যা স্মপর্কে অবগত করতে পারে।

Support Module: এটা ডিফল্ট থাকাই ভালো, (WHMCS Built-In System). আপনি চাইলে পরিবর্তন করে নিতে পারেন।

Support Ticket Mask Format:

%A - Uppercase letter | %a - Lowercase letter | %n - Number | %y - Year | %m - Month | %d - Day | %i - Ticket ID

আপনি যদি চান যে কেউ সাপোর্ট এ টিকেট ওপেন করলে তার টিকেট এর ফরম্যাট টা নিম্নোক্ত ফরম্যাট এর অনুরূপ হবে, তাহলে আপনি উপরের কোডটি ব্যবহার করতে পারেন।

A-a-1-2018-Month-Day-ID

 

এটি হচ্ছে উপরের কোড এর আউটপুট, আর আপনি যদি সাপোর্ট টিকেট ম্যাস্ক এ শুধু নাম্বার ব্যবহার করতে চান তাহলে নিচের কোডটি ব্যবহার করুন।

&n&n&n&n&n&

 

Ticket Reply List Order: এটা হচ্ছে আপনার টিকেট লিস্ট অ্যাডমিন প্যানেলে কেমন দেখাবে, যদি নতুন টিকেটগুলো সবার উপরে আর পুরনো টিকেটগুলো নিচে রাখতে চান তাহলে, Ascending (Oldest to Newest) সিলেক্ট করুন।

Ticket Reply Email Limit: প্রতি ১৫ মিনিটে কতটি টিকেট এর রিপ্লাই মেইল যাবে তা আপনি লিমিট করে দিতে পারবেন।

Client Tickets Require Login: ক্লায়েন্ট যে সাপোর্ট এ যে টিকেট ওপেন করেছিল, এটি পরবর্তীতে দেখতে হলে ক্লায়েন্টকে তার প্রোফাইল এ লগিন করে দেখতে হবে।

Knowledgebase Suggestions: এটির মূল কাজ হচ্ছে, ক্লায়েন্ট যখন কোন বিষয় নিয়ে টিকেটে লিখতে যাবে, সেই রিলেটেড কোণ সমাধান যদি KB (Knowledge Base) এ থাকে তাহলে সেই আর্টিকেলগুলো সাজেস্ট করবে।

Attachment Thumbnail Previews: এখানে ক্লায়েন্ট যদি কোন ইমেজ ইনসার্ট করে তাহলে তার Preview দেখাবে।

Allowed File Attachment Types: এখানে আপনি চাইলে নির্দিষ্ট করে দিতে পারেন, যে ক্লায়েন্ট কোন ধরনের ফাইল টিকেট এর ক্ষেত্রে ইনসার্ট করতে পারবে।

.jpg,.gif,.jpeg,.png

 

নাহলে কেউ চাইলে আপনার সাপোর্ট টিকেট এর মাধ্যমে আপনার সাইট যে কোন স্ক্রিপ্ট আপলোড করে রাখতে পারবে, আর এটা আপনার সাইট এর জন্য অনেক ক্ষতির কারন ও হতে পারে।

Service Status Require Login: এখানে কোন ক্লায়েন্ট যদি ত্রা সার্ভিস এর স্ট্যাটাস দেখতে চায়, তাহলে তাকে ক্লায়েন্ট সেকশনে তার Username & Password দিয়ে লগিন করতে হবে।

 

Invoices Tab

Invoices Tab WHMCS

 

যে কোন অর্ডার এর পর ক্লায়েন্ট অটোমেটিক যে ইনভয়েস পাবে, তা এখান থেকে আপনি চাইলে কাস্টমাইজ করে দিতে পারেন।

Enable PDF Invoices: এটা চালু থাকলে, ক্লায়েন্ট এর অর্ডার এর পর তার মেইল এ অটোমেটিক একটা PDF Invoice চলে যাবে।

PDF Paper Size: এখানে আপনি চাইলে PDF Paper Size সিলেক্ট করে দিতে পারেন, তবে A4 হলেই ভালো।

PDF Font Family: এখানে আপনি Invoice এর ফন্ট কেমন হবে তা সিলেক্ট করে দিতে পারবেন। এখানে কিছু ফন্ট দেওয়া আছে, আপনি চাইলে কাস্টম ফন্ট ও ব্যবহার করত পারবেন।

Enable Mass Payment: এটি এনাবেল করে রাখলে ক্লায়েন্ট সেকশনে একাদিক পেমেন্ট মেথড এর অপশন দেখাবে।

Clients Choose Gateway: এই ফাংশনটি ক্লায়েন্ট কে একাদিক পেমেন্ট মেথড থেকে যে কোন মেথড ব্যবহারের অনুমতি দেয়।

Group Similar Line Items: এই অপশনটির কাজ হচ্ছে, ইনভয়েসে একই রকম একাদিক প্রোডাক্ট বা সার্ভিসকে গ্রুপ করা এবং লিস্ট আকারে সাজানো।

Cancellation Request Handling: ক্লায়েন্ট বিল না পে করায় তার নামে একটি ডিউ ইনভয়েস তৈরি হয়ে আছে। এখন ক্লায়েন্ট যদি চায় তার সার্ভিস বা প্রোডাক্ট বাতিল করবে, তাহলে ক্লায়েন্ট তার অ্যাকাউন্ট থেকে ঐ প্রোডাক্টটি Cancel করে দিলে অটোমেটিক তার ডিউ ইনভয়েস টা ডিলিট হয়ে যাবে। আর এই কাজটি অটোমেটিক্যালি করার জন্য আপনাকে এই অপশনটি চালু রাখতে হবে।

Sequential Invoice Number Format: আপনার প্রতিটি ইনভয়েস যদি নাম্বার হিসেবে কাউন্ট হয় তাহলে এখানে আপনাকে {NUMBER} সিলেক্ট করে দিতে হবে। যেমন, Invoice No 181212.

Late Fee Type: কোন ক্লায়েন্ট এর প্রোডাক্ট এর বিল এর সাথে লেট ফি যোগ তা কি % এ হবে, নাকি ফিক্সড অ্যামাউন্ট এ হবে তা এখান থেকে নির্ধারন করে দিতে পারবেন।

Accepted Credit Card Types: আপনি আপনার পেমেন্ট এর ক্ষেত্রে কোন ধরনের ক্রেডিট কার্ড গ্রহন করবেন তা এখান থেকে সিলেক্ট করে দিতে হবে, আপনি যদি মাল্টিপল কার্ড সিলেক্ট করতে চান, তাহলে CTRL চেপে কার্ড এর নাম এর উপর ক্লিক করুন।

Credit এবং Affiliates যদি আপনি আপনার ক্লায়েন্টদের জন্য রাখতে চান, তাহলে এই দুটো ট্যাব থেকে কনফিগার করে নিতে পারবেন।

 

Security Tab

 

Security Tab WHMCS

এই ট্যাবটি সঠিকভাবে কনফিগার করা আপনার জন্য খুব গুরত্বপূর্ণ। এখানে আপনাকে ক্লায়েন্ট সেকশনে রেজিস্ট্রেশান সম্পর্কিত কিছু আলাদা সিকিউরিটি অ্যাড করে দিতে হবে।  এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হচ্ছে,

Email Verification: ইউজার ক্লায়েন্ট সেকশনে রেজিস্ট্রেশান করার পর, অটোমেটিক তার রেজিস্ট্রেশান ভেরফাই করার জন্য একটি মেইল যাবে। আর যতক্ষণ ইউজার এর অ্যাকাউন্ট ভেরিফাই না হওয়া পর্যন্ত তার প্রোফাইল বা অ্যাকাউন্ট এ একটি নোটিফিকেশান দেখাবে। Please Confirm Your Registration (Resend Verification Code).

Captcha Form Protection: ক্লায়েন্ট তার অ্যাকাউন্ট এ অ্যাক্সেস করার সময় তাকে একটি ভেরিফিকেশন বাইপাস করতে হবে। হয়তো সেখানে একটা কোড থাকবে, অথবা কিছু ইমেজ থাকবে যা সঠিক নাম দিয়ে ভেরিফাই করতে হবে। এতে ক্লায়েন্ট এর অ্যাকাউন্ট এর সিকিউরিটি আরো স্ট্রং হয়।

Captcha Type: এখানে আপনাকে ক্যাপচা টাইপ সিলেক্ট করে দিতে হবে। আপনি যদি চান, আপনি ডিফল্ট ক্যাপচা ব্যাবহার করতে পারেন অথবা গুগল এর ক্যাপচা ব্যবহার করতে পারেন।

Required Password Strength: ক্লায়েন্ট পাসওয়ার্ড ব্যবহারের ক্ষেত্রে সর্বোচ্চ কত ক্যারেক্টার ব্যবহার করতে পারবে, তা আপনি এখান থেকে নির্ধারন করে দিতে পারবেন।

Failed Admin Login Ban Time: অনেক সময় আমরা বিভিন্ন কারনে আমাদের অ্যাডমিন প্যানেল বা ক্লায়েন্ট এ প্যানেল এ লগিন করতে পারি না। তখন শুধু Failed দেখায়। এটা ম্যাক্সিমাম সময় পাসওয়ার্ড ভুল এর কারনে হয়ে থাকে। আপনি এখান থেকে এটা ও লিমিট করে রাখতে পারবেন, যে একজন ইউজার বা অ্যাডমিন কতবার সর্বোচ্চ ভুল পাসওয়ার্ড দিয়ে চেস্টা করতে পারবে। আপনি যদি এখানে ৩ লিখে দেন, তাহলে একজন ইউজার বা অ্যাডমিন ৩ বার ভুল পাসওয়ার্ড প্রেস করার পর নির্দিষ্ট কিছু সময়ের জন্য তার IP Address বযান করে দেয়া হবে। এতে করে তিনি সঠিক পাসওয়ার্ড দিয়ে ও নির্দিষ্ট সময়ের আগে লগিন করতে পারবেন না।

Disable Admin Password Reset: আমরা যখন কোন জায়গায় ভুল পাসওয়ার্ড এন্ট্রি করি, তখন পাসওয়ার্ড রিকভার করার জন্য একটা অপশন খোলা থাকে, Forget Your Password. কিন্তু আপনি চাইলে আপনার অ্যাডমিন প্যানেলে এই অপশন (Password Reset) অপশনতা বন্ধ করে ও রাখতে পারেন।

 

Social Tab

Social Tab WHMCS

 

এখানে আপনি আপনার Announce সেকশন কে Social Network (Facebook, Twitter, Google+) এর সাথে কানেক্ট করে রাখতে পারবেন।

Twitter Username: এখানে আপনার টুইটার প্রোফাইল এর ইউজার নেম বা প্রোফাইল লিঙ্ক দিয়ে কানেক্ট করে রাখতে পারেন। এতে করে আপনার যে কোন অ্যানাউন্সমেন্ট অটোমেটিক আপনার টুইটার প্রোফাইল এ আপডেট হয়ে যাবে।

Announcements Tweet: এটি চালু থাকলে আপনার অ্যানাউন্সমেন্ট এর নিচে একটি টুইট বাটন থাকবে, যে কেউ চাইলে এই অ্যানাউন্সমেন্টটি টুইট করতে পারবে।

Facebook Recommend: এটির সাহায্যে যে কেউ চাইলে অ্যানাউন্সমেন্টটি ফেসবুকে রিকমেন্ড এবং শেয়ার করতে পারবে।

Facebook Comments: এই অপশনটি বরতমানে সব ধরনের ব্লগের জন্য অনেক জনপ্রিয়। যে কেউ চাইলেই তাদের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট এর সাহায্যে যে কোন ব্লগ পোস্ট এর নিচে কমেন্ট করতে পারে। আপনি চাইলে আপনার অ্যানাউন্সমেন্ট সেকশনের জন্য এই অপশনটি এনাবেল করে রাখতে পারেন।

Google +1: এটির সাহায্যে যে কেউ আপনার অ্যানাউন্সমেন্টটি Google+ এ রিকমেন্ড এবং শেয়ার করতে পারবে।

 

Other Tab

 

Other Tab WHMCS

 

এখানে আপনাকে অ্যাডমিন প্যানেল এবং ক্লায়েন্ট প্যানেল বিষয়ক কিছু বেসিক জিনিস কনফিগার করে দিতে হবে। তার মধ্যে যেগুলো খুব প্রয়োজনীয়,

Admin Client Display Format: অ্যাডমিন প্যানেলে এবং ক্লায়েন্ট প্যানেলে অ্যাডমিন এবং ক্লায়েন্ট দের নাম কেমন দেখাবে, তা এখান থেকে নির্ধারন করে দিতে হয়। নরমালি First Name & Last Name থাকাই ভালো।

Allow Client Registration: এই ফাংশনটি যে কোন ক্লায়েন্টকে কোন কিছু অর্ডার করা ছাড়াই আপনার ক্লায়েন্ট সেকশনে রেজিস্ট্রেশান করার অনুমতি দেয়।

Client Details Change Notify: এই অপশনটি চালু রাখলে, ক্লায়েন্ট তার অ্যাকাউন্ট বা প্রোফাইল এর কোন ইনফর্মেশন পরিবর্তন করলে অ্যাডমিন এর কাছে একটি মেইল অটোমেটিক চলে যাবে।

Show Cancellation Link: এই ফাংশন এর সাহায্যে, ক্লায়েন্ট চাইলেই ক্লায়েন্ট প্যানেল থেকে তার যে কোন প্রোডাক্ট এর জন্য Cancelation Request পাঠাতে পারবে।

Monthly Affiliate Reports: আপনার Affiliates অপশনটি চালু থাকলে এই ফাংশন এনাবেল এর মাধ্যমে আপনি প্রতি মাসে একটা Affiliates রিপোর্ট পেয়ে জাবেন।

Banned Subdomain Prefixes: আপনি চাইলে এখানে নির্ধারন করে দিতে পারেন, যে কোন ধরনের সাবডোমেইন থেকে কোন মেইল আসলে তা অটোমেটিক ব্যান হয়ে যাবে। যেমন, (info@webmail.demo.com).

আর সবগুলো ট্যাবেই আপনি কিছু পরিবর্তন করে সেভ করার জন্য Save Changes বাটনে ক্লিক করুন। আজকের পর্বে এই পর্যন্তই। কোথাও বুঝতে সমস্যা হলে কমেন্ট করুন এবং WHMCS এর গুরত্বপূর্ণ পার্টগুলো জানতে টস বাংলা ব্লগের সাথেই থাকুন।